১৭ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম :
নারায়ণগঞ্জ জেলা ও মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা ২৭টি ওয়ার্ডে কাউন্সিলর আগামী পাঁচ বছরের জন্য যারা নেতৃত্ব দিবেন নাসিক নির্বাচনে তৃতীয় বারের মত আইভী জয়ী নাসিক নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শেষ চলছে গণনা গভীর রাতে শীতার্ত অসহায় মানুষের পাশে সাপাহার থানার ওসি চিরিরবন্দরে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের করোনা ভ্যাকসিন ১ম ডোজের টিকা প্রদান চিরিরবন্দরে শ‍্যামলী পরিবহন- অটো মুখোমুখি সংঘর্ষে, নিহত-২ আহত ১ ইভিএমের মাধ্যমে ভোট গ্রহন চলছে, ভোটারদের উপস্থিতি কম অমিক্রন প্রতিরোধে বেনাপোল ইমিগ্রেশন উদাসীন ! “৮ মাসের শিশু” অপহরণের ৭২ ঘন্টার মধ্যে ঢাকার উত্তরা থেকে উদ্ধার
  • প্রচ্ছদ
  • অন্যান্য >> অপরাধ >> ছবি ঘর >> টপ নিউজ >> ঢাকা >> দেশজুড়ে
  • ৩ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থীর পোষ্টার লাগাতে বাধা, মারধর : আহত ৩
  • ৩ নং ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থীর পোষ্টার লাগাতে বাধা, মারধর : আহত ৩

    নাসিক ৩ নং ওয়ার্ডের সম্ভাব্য কাউন্সিলর প্রার্থী ফররুখ আহমেদ খসরুর নির্বাচনী পোষ্টার লাগাতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছে তার লোকজন। এসময় তিনজনকে মারধর ও সব পোষ্টার ছিনিয়ে নেয় অজ্ঞাত লোকজন। বিভিন্ন স্থানে লাগানো সব পোষ্টার ছিড়ে ফেলে তারা। গত সোমবার রাত সাড়ে ১২ টার দিকে মাদানীনগর ব্রিজ এলাকায় এঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় কারো নাম উল্লেখ না করে মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় ফররুক আহমেদ খসরু বাদী হয়ে একটি জিডি করেন। জিডি নং- ৬০৮।

    এদিকে এ ঘটনার সংবাদ পেয়ে সোমবার রাতেই সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আজিজুল আহতদের দেখতে হাসপাতালে যান। মারধরে আহতদরে মধ্যে শামীম ও জসিম নামে দুইজনের নাম জানা গেছে।

    জিডিতে উল্লেখ করা হয়েছে, আসন্ন সিটি নির্বাচনে নাসিক ৩ নং ওয়ার্ডে একজন কাউন্সিলর পদপ্রার্থী খসরু। তাই নির্বাচনী ইসতেহার ও পরিচিতির জন্য পোষ্টার ও লিফলেট বিতরণ করছি। এরই সুবাদে গত সোমবার রাত সাড়ে ১২ টায় মাদানীনগর ব্রিজ এলাকায় পোষ্টার লাগানোর সময় তিনটি মোটর সাইকেল দিয়ে অজ্ঞাত ৬ জন লোক এসে এলোপাথারি মারধর করে লোকজনের হাত থেকে পোষ্টার কেড়ে নিয়ে বিভিন্ন এলাকায় লাগানো সকল পোষ্টার তুলে ফেলে। এ ঘটনায় আমি ও আমার লোকজন চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি।

    সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আজিজুল জানান, বিষয়টি তদন্তনাধীণ রয়েছে। আহতদের দেখে এসেছি, তারা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে চলে গেছে।

    আরও পড়ুন