২০শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |
শিরোনাম :
ভূমি জালিয়াতির আখড়া কেরাণীগঞ্জ রেকর্ড বহির্ভূত জাল দলিলেই হচ্ছে নামজারি সাংবাদিক সুরক্ষা আইন প্রণয়নের দাবীতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি প্রদান সাম্প্রদায়িত সম্প্রীতি রক্ষায় মহানবী (সা.)’র আদর্শ সুমহান : ন্যাপ মহাসচিব সাংবাদিক জনি’র চীর বিদায় শেখ রেহানাকে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া উচিত বলে মন্তব্য : ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী খুলনা জেলা ডিবি পুলিশের অভিযানে ফুলতলা হতে ৫ লিটার দেশী মদসহ গ্রেফতার ১ ঝিনাইদহে নিখোঁজ ইজিবাইক চালকের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার আগাম আলু চাষিদের স্বপ্ন এখন গুড়েবালি শ্বশুরবাড়ির অমানুষিক নির্যাতনে মিঠুনের মৃত্যু ৯৬ রানে অলআউট বিপর্যয়ে লঙ্কানরাও
  • প্রচ্ছদ
  • অপরাধ >> এক্সক্লসিভ >> চট্টগ্রাম
  • চট্রগ্রামে পুরুষাঙ্গে স্ত্রীর লাথিতে স্বামীর মৃত্যু হয়েছে
  • চট্রগ্রামে পুরুষাঙ্গে স্ত্রীর লাথিতে স্বামীর মৃত্যু হয়েছে

    চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে পুরুষাঙ্গে স্ত্রীর লাথিতে মৃত্যু হয়েছে এক স্বামীর। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার ভোর রাতে মুত্যু হয় আবুল হোসেন (৫০) নামে ওই ব্যক্তির। এ ঘটনায় অভিযুক্ত স্ত্রী লায়লা বেগমকে (৪০) আটক করেছে পুলিশ।

    স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার জঙ্গল ছলিমপুর এলাকার বাসিন্দা নিঃসন্তান দম্পত্তি মো: আবুল হোসেনের (৫০) সাথে স্ত্রী লায়লা বেগমের বৃহস্পতিবার রাতে ঝগড়া হয়। আবুল হোসেন স্থানীয় ইউপি সদস্য ও এলাকার কয়েকজন গণ্যমান্য ব্যক্তিকে ডেকে আনেন। এসময় তারা স্বামী-স্ত্রী উভয়কে আর ঝগড়া না করে শান্ত থাকতে বলে দুজনকে মিলিয়ে দেন।

    পরে রাত সাড়ে ১২টার দিকে আবারো ঝগড়া হয়। ঝগড়ার একপর্যায়ে লায়লা বেগম উত্তেজিত হয়ে আবুল হোসেনের পুরুষাঙ্গে সজোরে লাথি মারেন। এতে আবুল হোসেন গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। খবর পেয়ে স্থানীয়রা আবুল হোসেনকে উদ্ধার করে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার ভোর রাতে মৃত্যু হয়।

    চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে পুরুষাঙ্গে স্ত্রীর লাথিতে মৃত্যু হয়েছে এক স্বামীর। চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার ভোর রাতে মুত্যু হয় আবুল হোসেন (৫০) নামে ওই ব্যক্তির। এ ঘটনায় অভিযুক্ত স্ত্রী লায়লা বেগমকে (৪০) আটক করেছে পুলিশ।

    স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার জঙ্গল ছলিমপুর এলাকার বাসিন্দা নিঃসন্তান দম্পত্তি মো: আবুল হোসেনের (৫০) সাথে স্ত্রী লায়লা বেগমের বৃহস্পতিবার রাতে ঝগড়া হয়। আবুল হোসেন স্থানীয় ইউপি সদস্য ও এলাকার কয়েকজন গণ্যমান্য ব্যক্তিকে ডেকে আনেন। এসময় তারা স্বামী-স্ত্রী উভয়কে আর ঝগড়া না করে শান্ত থাকতে বলে দুজনকে মিলিয়ে দেন।

    পরে রাত সাড়ে ১২টার দিকে আবারো ঝগড়া হয়। ঝগড়ার একপর্যায়ে লায়লা বেগম উত্তেজিত হয়ে আবুল হোসেনের পুরুষাঙ্গে সজোরে লাথি মারেন। এতে আবুল হোসেন গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। খবর পেয়ে স্থানীয়রা আবুল হোসেনকে উদ্ধার করে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার ভোর রাতে মৃত্যু হয় তার।

    স্থানীয় বাসিন্দা মফিজুর রহমান জানান, তারা ছিলেন নিঃসন্তান দম্পত্তি। সাংসারিক নানান বিষয় নিয়ে তাদের মাঝে প্রায় সময় ঝগড়া হতো।

    তিনি আরো জানান, তাদের গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ সালঙ্গা থানার আগরপুর এলাকায়। তারা জঙ্গল ছলিমপুর ছিন্নমূল এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতেন।

    সীতাকুণ্ড মডেল থানার ওসি (তদন্ত) সুমন বণিক জানান, শুক্রবার সকালে এ ঘটনায় একটি হত্যা মামলা দায়ের হয়েছে। আসামি লায়লা বেগমকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

    সূত্রঃ নয়া দিগন্,

    আরও পড়ুন